• বাংলা বর্ণমালার প্রথম ব্যঞ্জনবর্ণ এবং অঘোষ অল্পপ্রাণ কণ্ঠ্য ক্-ধ্বনির দ্যোতক বর্ণ।

ক্রিয়া

  • (তুচ্ছার্থে) কহ, বল।

উৎস

  • বাংলা √ কহ্।

বিশেষণ

  • কয়, কত (ক-রকম, কখানি)।

উৎস

  • বাংলা কয়।

, কো

  • (কাব্যে বা কথ্য) নিষেধাত্মক শব্দকে শ্রুতিমধুর, মিনতিপূর্ণ বা জোরালো করবার জন্য স্বার্থে ব্যবহৃত প্রত্যয়বিশেষ (যেয়ো নাকো, নেইকো)।

ক খ না জানা

ক খ না জানা

  • (আলঙ্করিক) কোনো বিষয়ের প্রাথমিক তথ্যও না জানা (আরে সে তো সংগীতের ক খ-ও জানে না).

ক-বর্গ

ক-বর্গ

বিশেষ্য

  • বাংলা ব্যঞ্জণবর্ণের প্রথম বর্গ; ক খ গ ঘ ঙ এই পাঁচটি বর্ণ যে বর্গভুক্ত।

কই

কই

অব্যয়

  • কোথায় (জিনিসটা কই?);
  • নৈরাশ্য, প্রত্যাশিত্যের অভাব, অস্বীকার, বিস্ময় ইত্যাদি বোঝাতে (কই আর গেলাম; কই, পাইনি তো; কই, দেখি)।

উৎস

  • সংস্কৃত ক্ব।

কই

বিশেষ্য

  • পিঠে শক্ত কাঁটাযুক্ত এবং হাঁটতে পারে এমন কালো রঙের ছোট মাছবিশেষ, anabas.

উৎস

  • সংস্কৃত কবয়ী।

কই

ক্রিয়া

  • কহি-র কথ্যরূপ (‘কইতে কথা বাধে’: রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর)।

কইয়ে

কহিয়ে, কইয়ে

বিশেষণ

  • খুব কথা বলতে পারে এমন, বাক্পটু (বেশ কইয়ে লোক)।

উৎস

  • সংস্কৃত কহা।

কইলা

কইলা, কইলে

বিশেষ্য

  • নবজাত বকনা বা স্ত্রীবাছুর।

উৎস

  • সংস্কৃত কপিলা।

কইলে

কইলা, কইলে

বিশেষ্য

  • নবজাত বকনা বা স্ত্রীবাছুর।

উৎস

  • সংস্কৃত কপিলা।

কইলে

ক্রিয়া

  • কহিলে এর কথ্যরূপ, বলিলে৷

কইসন

কইসন

বিশেষণ

  • (অপ্রচলিত) কৈছন, কেমন।

উৎস

  • হিন্দি কৈসন।

কইসর

কইসর

বিশেষ্য

  • সম্রাট, বাদশাহ্।

উৎস

  • আরবি কয়্সর্
  • লাতিন caesar কাঈজার।